1. admin@dailypratidinerbarta.com : admin :
সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১২:৩৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
আজ দৈনিক প্রতিদিনের বার্তার প্রকাশক ও সম্পাদক মোঃ ফিরোজ শাঁইয়ের শুভজন্মদিন নিপুণ কে, কি এবং কি করেন, তা তার নিজেরই ভেবে দেখা উচিৎ- ডিপজল মুন্সীগঞ্জে ঐতিহ্যবাহী মিরাপাড়া নির্মিত হচ্ছে মসজিদ ও কমপ্লেক্স এর নতুন চিত্র। তুষারধারায় চেয়ারম্যান সেন্টুর নির্দেশে প্যানেল চেয়ারম্যান অনামিকা আরসিসি রাস্তার কাজের শুভ উদ্বোধন করলেন  কয়রায় অসংক্রামক রোগের প্রতিকার ও প্রতিরোধ বিষয়ক ওরিয়েন্টেশন নাইকো দুর্নীতি মামলা খালেদার জিয়ার বিরুদ্ধে সাবেক বাপেক্স এমডির সাক্ষ্য মাতুয়াইল শিশু মাতৃ স্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটে ভুল চিকিৎসায় নবজাতকের মৃত্যু জাতীয় আইটি প্রতিযোগিতায় অটিজম বিভাগে প্রথম স্হান অর্জন করেছেন,কয়রার রায়াত মুন্সীগঞ্জে আইনশৃঙ্খলা কমিটি সভায় কিশোর গ্যাং মাদক নিয়ন্ত্রণে কঠোর ভূমিকা। ঠাকুরগাঁও জেলা পুলিশ কর্তৃক মাদক সহ আটক -৭

তুরস্ক-সিরিয়ায় ক্ষতিগ্রস্ত শিশুর সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৭০ লাখ : জাতিসংঘ

  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩
  • ৫৮ বার পঠিত

ডেস্ক রিপোর্ট:-
গত কয়েক দশকের মধ্যে ভয়াবহতম ভূমিকম্পে তুরস্ক ও সিরিয়ায় হাজার হাজার শিশু নিহত হয়েছে এবং কোনো না কোনোভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ৭০ লাখেরও বেশি শিশু। মঙ্গলবার এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানিয়েছেন জাতিসংঘের শিশু বিষয়ক অঙ্গসংস্থা ইউনিসেফের মুখপাত্র জেমস এলডার।

সুইজারল্যান্ডের রাজধানী জেনেভায় ইউনিসেফের সদর দপ্তরে আয়োজিত সেই সংবাদ সম্মেলনে জেমস এলডার বলেন, ‘সাম্প্রতিক ভয়াবহ ভূমিকম্পে তুরস্ক ও সিরিয়ায় হাজার হাজার শিশুর মৃত্যু হয়েছে; কিন্তু আমাদের আশঙ্কা, তাদের অনেকের নাম হয়তো সরকারি নিহতের তালিকায় নথিভুক্ত হয়নি।’

‘নিহতের সংখ্যা ভবিষ্যতে আরও বৃদ্ধির আশঙ্কা আছে। এর বাইরে তুরস্কে ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে অন্তত ৪৬ লাখ শিশু। সিরিয়ায় এই সংখ্যা অন্তত ২৫ লাখ।’

জাতিসংঘের এই কর্মকর্তা বলেন, ক্ষতিগ্রস্ত এই শিশুদের একটি অংশ শারীরিকভাবে আহত। এর বাইরে গৃহহীন, ক্ষুধার্ত ও শীতার্ত অবস্থায় দিন যাপন করতে বাধ্য হচ্ছে লাখ লাখ শিশু; বিপুলসংখ্যক শিশু হারিয়েছে তাদের মা-বাবা ও পরিবারের অন্যান্য আত্মীয়-স্বজনকে।

৬ ফেব্রুয়ারি সোমবার স্থানীয় সময় ভোর ৪টা ১৭ মিনিটে ৭ দশমিক ৮ মাত্রার ভূমিকম্পে কেঁপে ওঠে তুরস্ক ও তার প্রতিবেশী দেশ সিরিয়া। ওই ভূমিকম্পের ১৫ মিনিট পর ৬ দশমিক ৭ মাত্রার আরও একটি বড় ভূমিকম্প এবং পরে অনেকগুলো আফটারশক হয়।

যুক্তরাষ্ট্রের ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থা ইউএসজিএসের তাৎক্ষণিক এক বিবৃতিতে বলা হয়, তুরস্কের দক্ষিণাঞ্চলীয় কাহরামানমারাশ প্রদেশের গাজিয়ানতেপ শহরের কাছে ভূপৃষ্ঠের ১৭ দশমিক ৯ কিলোমিটার গভীরে ছিল ভূমিকম্পটির উৎপত্তিস্থল।

ভূমিকম্পে ইতোমধ্যে দু’দেশে নিহতের সংখ্যা ৩৪ হাজার ছাড়িয়ে গেছে, আহত হয়েছেন দেড় লাখেরও বেশি মানুষ।

‘হাজার হাজার শিশু তীব্র শীতের মধ্যে সড়ক, স্কুল, মসজিদ, বাসস্টেশন এমনকি সেতুর নিচেও রাত কাটাতে বাধ্য হচ্ছে। তাদের খাদ্য নেই, আশ্রয় নেই। আমরা এখানে থেকে যতখানি আশঙ্কা করছি, বাস্তবে সেখানকার পরিস্থিতি আরও কয়েকগুণ খারাপ,’ সংবাদ সম্মেলনে বলেন জেমস এলডার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২২ © দৈনিক প্রতিদিনের বার্তা ©
Theme Customized By Shakil IT Park